দাঁতের চিকিৎসা ও মুখের আলসার

0
144

পারদের ক্ষতিকর প্রভাব সম্পর্কে সচেতনতা গড়ে তোলার লক্ষ্যে বাংলাদেশ ডেন্টাল সোসাইটি এবং ESDO (Environment and Social Development Organiæation) যৌথভাবে ২০১৮ সালে সেমিনারের আয়োজন করেছে। দাঁতের চিকিৎসায় স্থায়ী ফিলিং দেওয়ার সময় অর্থাৎ সিলভার এমালগাম ফিলিং দেওয়ার সময় মারকারি বা পারদ ব্যবহার করা হয়। ডেন্টাল এমালগাম ফিলিংয়ে প্রায় ৫০ ভাগ মারকারি বা পারদ বিদ্যমান থাকে। পারদ সহজেই বাষ্পীভূত হয় এবং চর্ম ও শ্বাসনালি দ্বারা শোষিত হয়। পারদ প্রাকৃতিক পরিবেশকে দূষিত করে। ডেন্টাল এমালগাম ফিলিং দেওয়ার সময় কোনোভাবে পারদ মুখের মিউকাস মেমব্রেনের সংস্পর্শে এলে এবং মোটামুটি একটি নির্দিষ্ট সময় অবস্থান করলে মুখে আলসার বা অন্য যে কোনো সমস্যা দেখা দিতে পারে। পারদের বাষ্প কেন্দ্রীয় স্নায়ুতন্ত্রের জন্য ক্ষতিকারক যা ইতোমধ্যেই প্রমাণিত হয়েছে। মারকারি বা পারদের প্রভাবে কেন্দ্রীয় স্নায়ুতন্ত্রের ডিজেনারেশন হয়ে থাকে। সিলভার এমালগাম ফিলিং স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। বিষাক্ত পারদের বাষ্প সিলভার এমালগাম ফিলিং থেকে নিঃসৃত হয়। এমালগাম ফিলিং যে দাঁতে থাকে তার পাশে মিউকোসায় রেটিকুলেট, লেসি, প্ল্যাকের মতো বা ইরোসিভ লাইকেনয়েড রিঅ্যাকশন দেখতে পাওয়া যায়। তবে সব সময় বা সবার ক্ষেত্রে এ ধরনের লক্ষণ দেখা যায় না। দাঁতে সিলভার এমালগাম ফিলিং দেওয়ার সময় অসাবধানতা বশতঃ ফিলিংয়ের উপাদান মুখে থেকে গেলে তা মুখের মিউকোসাতে পিগমেন্টেড প্লাগ তৈরি করতে পারে যা এমালগাম টাট্টু নামে পরিচিত। অনেক সময় মুখের মিউকোসাতে মারকারি বা পারদ শোষিত হলে মুখের মিউকোসাতে আলসার দেখা যায় যা ভালো হতে সময় লাগে। তাই আমাদের সবার মারকারিমুক্ত ফিলিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে।

লেখক : মুখ ও দন্তরোগ বিশেষজ্ঞ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here